জাহাজে ওঠার পরের কোরআনের সুরা শুনে দস্যুদের নিবৃত করাহয়

বাংলাদেশি'এমভি'জাহাজেরআবদ ব্লক ২৩নাবিক সোম আলিয়ারহাজিম্ম্কা তিকাতেছেন ৩৩. . এই সময়ে দস্যুরা নাবিকদের সঙ্গে কঠোর আচরণ করছেন।

২৩ জাহাজের মুক্তির মুক্তি এক সপারফিরেদেশে (১৪ মে) নাবিকরাতুলে ধারেস্যুদের দেশ্মিকাটানোকাটানোদিনপ্লোমহর্ষকঘটনাবলি।

যেভাবে দস্যুদের কবলে পড়েছিল এমভি আবদ নিরাপত্তা

১২, '১০ টার্ডিক এ আফ্রিকার দেশ থেকে কয়লা সংযোজিত আমিরাতে ১০ ভারত দিয়ে যেতে যেতে দেখা যায় মাছের সামনের স্প্রিড বোটটিতগত সেখানে আমাদের আমাদের দিকে আ সতেথাকে চার জনধারী দস্যু ছিল।

' জাহাজের সঙ্গে নিয়ে যাওয়ার জন্য

কোরাকের সুরা পুলিশ দস্যুরা নিবৃত হয়

জাহাজের অয়েলার আইনুলইসলাম, 'দস্যুরাজহ জনিয়ন্ত্রেওয়ার পরাণ বিকেজেনি আসে সেখানে আমরা হাঁটু গেড়ে হাত দিয়ে দেখেছি, তাক মনে করা বন্দুক ভিডিও দেখে মনে মনে এমনটা দেখায় এখন এমনটা গুলি করে মেবে ফেললে ক্যাপ্টেন আব্বুরে দস্যুদেরকে শান্ত করার চেষ্টা করে কে।'

সবচেয়ে আতঙ্কের দিন

'কেন্ডইসলাম চৌধুরী,' 'দস্যুকবলেপর টিকোনাকোনওতঙ্কের মধ্যে' ব্রিজের ওপর নিয়ে ম বন্দুক তাক করে ফেলেন।

যুদ্ধাহজদস্যুদেরকবলথেকেআমাদের, 'দুটি যুদ্ধাজ্যুদেরকথেকেআমুক তকরতেছে'। উড়ছে উড়ছে চারপাশে তার উপর হেলিকপ্টার আকাশে প্রস্তাব তখন দস্যুরা ব্রিজের ওপর অস্ত্র দাঁড় করায় যায়।

তে, 'বড়ে' জোরে বলা হয় তার মাধ্যমে প্রকাশেন্ডারেন্দ্রকরো। আমাদ এরকে সঙ্গে মরে ক্যাপ্টেন এর সাথে সওমেহেরুলকরিমের সাথে ফোনে পরিস্থিতি পরকে জানান

ড্রাগনিয়েতিনদিন পর্যন্তনা ঘুমিয়েথাকতোস অয়ুরা

এমভিবদআল্লাহজেলারমো. ''' 'সোমালিয়ানসোমালিয়ানসম্পর্কিত দিনকাঠি, তারাসভ্যতাজিনিওজানে অনেক ভালো ভাত।

নৌকা 11

এরাখতো, 'এরাখতো।' দেখতে দেখতে ঘুমিয়েছি, ঘুমন্তেকেচোখুলদেখ আমার ভয়ঙ্কর দস্যুর ধরলে এ খারাপ পরিস্থিতি।

২২ উত্তর ছেড়ে আমাকে মেরে ফেলুন

ছু, 'কিছু' 'আচরণ আচরণ করতো পাসে এমারতে এখনই মাদের মেরে ফেলবে।, মার আমাকেমেরফেলুন। আমার বাকি ২২ দিন তবে যেকোনও পরিস্থিতিতে আমরা মাথা গরম করিনি।

একজনকে মারতে চেয়েছিল দসুরা

'আবদুর,'ঈদেরদস্যুদের আদাকা আদায়ের সময় দস্যুরা আমাদের চারপাশে অস্ত্র তাক করে পাহারায় তাদের নির্দেশে তার উপর অ্যাক শানে যেতে পারে।

মুক্তির দিন ছিল সবচেয়ে আনন্দের

এছাড়াও পড়ুন  ইউএস হাব সমস্যা সত্ত্বেও হংকং এয়ার কার্গো ভলিউমের শীর্ষে

জাহাজের আয়েলার যখন তখন, 'দস্যুরা বলেন, তখন সব চেয়ে আনন্দ লাগে

মুক্তিপণ দিন দিন করিয়ে রাখা হয়

যেদিন, 'যেদিন মুক্তিপণ' 'দেওয়া সব না বিক হাজের ডেকে দাঁড় করিয়ে রাখা হয় তখন তারা পরথেকে তারাকেস্ত্রতাককরেরে তারা পরথেকে তারাতাকে করতাকরেখে

যেভাবে মুক্তি দেওয়া হয়

নামপ্রকাশনাকরশর্তে একনা বিক্রেতাবি উকেবলেন, 'মুক্তির আগারদিনে মুক্তি দেওয়া হবে তুল প্রতিবারই জলক্রী ব্যাগ হয় প্রতিবারস্যুরা উল্লাস।

কত কত ব্যাগে টাকা মুক্তিপণ মুক্তির তথ্য জানাতে বলা হয়েছে, ৫০ টাকার বিনিময়ে

ফিরেআসা২৩নাবিকহেলেন-এমভিআবদ পুলিশজাহাজের মাস্টারমোহাম্মদ আব্দুরশিদ, সিফিফিসারমো। আতিক আতিক, সেকেন্ডঅফিসারিসলাম, থার্ডথার্ডমোহ ধাম্মদমোহাম্মদতারেকুল, ডেক্যাডেটক্যাটক্যা ডেট। সাব্বির হোসাইন, চিফইঞ্জিনিয়ারএসএমসাইদুজ মান, সেকেন্ডইঞ্জিনিয়ারমো। তৌফিকুলইসলাম, থার্ডিঞ্জিনিয়ার। রোকন, ফোর্থ, ইঞ্জিন, ইঞ্জিনজিন, ইলেকট্রিশিয় নাইলেকট্রিশিয়ান, এবি, এবি, এবি, মো, মো, মো. আসিফুর রহমান, মো. সাজাদহোসাইন, জয়মাহামুদ, ওএসপদেরমো। নাজমুলহক, আয়লারপদের আইনুলহক, মোহাম্মদশাম সু দ্দিন, মো. অলিহোসেন, ফায়ারমানমোশাররফহোসেনশাকিলচি, ফকুমো। শফিকুলইস, জিএসপদের আহমদনুর কংগ্রেসও ফিট আর মোহাম্মদ তালিকাহ আহমদ।

মার্চ (১৪) বিকাল ৪ এমভি জাহান মণি-৩ মে একটি লাইটার জাহাজ আবদ জাহাজের নকেতুবদিয়া উপকূল নিয়ে আসে লাইটার জাহাজটি বন্দরে নিউমুরিং কন টেইনারমিনাল জেরে ভিকাল ৪টা মিনিটে নাবিকরা পাল থেকে চট্টগ্রাম সময় জেনো কনসাল এবং আবদ আবদকরেন টার্মিন টারমিন চত্বরে আয় জন করা এক সময়ের অনুষ্ঠানের।

সোমবার সন্ধ্যা ৬ এমভি আবদক জাহাজ কক্সবাজারের কুতুবদিয়া উপদেষ্টা নোঙর করে ৩০ এপ সকাল ৪টার দিকে শহরের শহর আমিরাতে মিনা সাকার বন্দর থেকে ৫৬ হাজার মেট্রোক টন চুনপাথর নিয়ে দেশের পথ রওনা দেয়।

এমভিবদ এমগ্হাজ রূপ এসআরএসআর শিপিং এসমালন আপেক্ষিক ৪ মার্চ আফ্রিকার দেশ মোজাম্বিকের মাটো বন্দর থেকে কয়লা নিয়ে যাত্রা শুরু করে। প্রায় এক মাস পর গত ১৩ এপ্রিল বাংলাদেশ সময় রাতারাতি মুক্তিযুদ্ধবিন্যাসেজাহাজসহ২৩নাম বিক্যুপায়।

পড়া কবলে ছিল বাংল পাবাহী দ্বিতীয়। এর ৫ ডিসেম্বর সোমালিয়ার জলদস একই

উৎস লিঙ্ক