মহাশহীদিবসওআন্তর্জাতিকমাতৃভাষাদিবসেশ হিদ মিনারে ফুলকে কেন্দ্র করে পাবনা বিজ্ঞাপন করা নওপ্রযুক্তি দিয়ে আমাদের কর্মীরা আমাদের দুই দলের মধ্যে হতাহাতি ও ধস্তাধস একত্রে ঘটছে।

(২১ এপ্রিল) সকাল সোয়া ৮টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়চত্বরেশহিদমিনেরসামনেএঘটনামি নাসামনেঘটনামি নাসামনেঘটনাকে কেন্দ্র করে সুষ্ঠু বিচার ও নিরা পয়ার চেয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার বরা বরাত অভিযোগ দেওয়হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী নীতিপ্রশাসনের সঙ্গে জানা গেছে, পবিপ্রবি অফিসের যশোরীয় কর্মকর্তাদের একটি সরকারি সংস্থা ছিল। অধিদপ্তরের নেতারাশে মীদকে ফুল দিতে গিয়া দুই দুই পক্ষকে। অদূরে পবিপ্রবি অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন শ্রদ্ধা নিবেদন করে। পরে পুস্তক নিয়ে আপনার মিনারের সামনে যান নন রাজ্যের উত্তরাধিকাররা। ।

এ সময় তাদের শান্ত পুষ্পার্ঘ্য ও ব্যানারে আমি তাদের সঙ্গে আছি।

পাস্ট ডিরেক্ট রিক্রুটেড অফিস অ্যাসোসিয়েশন শনের আহ্বায়ক জি এম শামসদ ফখরুল ও সদস্যচিব রফিকুল ইসলাম বলেন, 'আমরা ফুল নিয়ে আপনাদের মিনরেস মনে পরপরই অফিস অ্যাসোসিয়েশনের জন্য তারা বাধা দেয় এবং ফুলের তোড়ায় শান্তিতে আমাদের সংগঠিত করার নাম ব্যাট না করে। আমরা দুই নারী কর্মী লাঞ্ঞ্ছন করিতেছি।

পাবিপ্রবিফিস-এর স্যাসোসিয়েশনের সভাপতিহ রুশিদনবলেন, 'কর্মকর্ভিশ স্ব্বের কর্মকর্দদের একটি সরকারি তথ্য আছে বিদ্যাকে পাবিপ্রবি কর্পোরেশন সেসঅসোস নন। আমি, একা নিম ব্যবহার না অন্য মডেল কোন্ডন তৈরি করতে।

আপনার মিনারেফুল দেওয়ানিয়ে কর্মীরা আমারদুট ই রাজ্যের সমস্যাগুলি উল্লেখ করে বিশ্ব বডিলয়ের প্রক্টরড৷ কামাল হোসেন বলেন, 'একইপ্‌ফ্‌ন অফিসে বাগবিতণ্ডার বলি।

এব্যাপারে সম্পূর্ণরেজিস্ট্রাবি নন “কুমার” ই পার্টির মধ্যে এক সমস্যা হয়েছে।





Source link

এছাড়াও পড়ুন  রেঞ্জার্স হার্টস এবং সেল্টিককে হারিয়ে ফাইনালে উঠেছে